Sports Opinion

‘কাউকে পছন্দ না সেটা আমার চোখ-মুখ বা আচরণ দেখে বুঝতে পারবেন। রোহিত ও আমার মধ্যে কোনও সমস্যা নেই’: বিরাট কোহলি

রোহিতের সাথে বিরাটের মনোমালিয় নিছকই গুজব , কাউকে অপছন্দ হলে আমার হাবেভাবে বোঝা যায়, দলের মধ্যে মাথা চাড়া দিয়েছে রোহিত ও বিরাটের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব !

রোহিত-বিরাট দ্বন্দ্বের খবর চাউর হওয়ার পর মুখ খুললেন বিরাট কোহলি ।অধিনায়ক বলেন গোটা বিষয়টি অত্যন্ত হাস্যকর , ‘কাউকে পছন্দ না সেটা আমার চোখ-মুখ বা আচরণ দেখে বুঝতে পারবেন। রোহিত ও আমার মধ্যে কোনও সমস্যা নেই’।

ভারতের হারের পরই খবর আসে বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল ,রোহিত ও বিরাটের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব দলের মধ্যে মাথা চাড়া দিয়েছে । অভিযোগ পছন্দের ক্রিকেটারদের সুযোগ দিচ্ছেন অধিনায়ক। রোহিত শর্মার তা নিয়ে ঘোরতর আপত্তি রয়েছে । অধিনায়ককে থামিয়ে কোচ রবি শাস্ত্রী বলেন সাংবাদিক সম্মেলনে, ‘সত্যিই দলে বিভাজন বা দ্বন্দ্ব থাকলে সব ধরনের ক্রিকেটে ধারাবাহিক ভালো খেলা সম্ভব নয়। অল আর ভোগাস ‘।

বিরাট কোহলি রোহিতের সঙ্গে তাঁর দ্বন্দ্বের খবর সংবাদমাধ্যমের কল্পনা ছাড়া আর কিছুই নয় বলে মনে করেন ।বিরাট স্পষ্ট করেছেন, কাউকে পছন্দ না সেটা আমার চোখ-মুখে বা আচরণে বোঝা যায়। আমি সব সময় রোহিতের প্রশংসা করে এসেছি, কারণ ও দারুণ ক্রিকেটার।এটা বিভ্রান্তিকর। জানি না এতে কাদের লাভ হবে।

অভিযোগ বিরাটের তাঁর পছন্দের ক্রিকেটাররা বারবার ব্যর্থ হলেও সুযোগ পেয়ে চলেছেন। বঞ্চিত হচ্ছেন যোগ্যরা। তার খেসারত দিতে হয়েছে অম্বাতি রায়াডু। দুটি গোষ্ঠীও বিদ্যমান দলে রোহিত ও বিরাটের।বিরাট কোহলি ও অনুষ্কা শর্মাকে আনফলো করে দেন সহ-অধিনায়ক দিন কয়েক আগেই ইনস্টাগ্রামে । তার ফলে জল্পনা আরো বেড়ে যায়। নিশ্চিত হতে থাকে আমি পাবলিকের গুজব।

বিরাট বলেন গত ৩ বছর ধরে দারুণ খেলছে আমাদের দল। এটাই প্রমাণ করে দলে সব কিছু ঠিক আছে। একে অপরকে সকলে বিশ্বাস করেন’। কোহলি আরও বলেন,’দীর্ঘদিন ধরে আমরা একসঙ্গে খেলছি। আমি ১১ ও রোহিত ১০ বছর ধরে খেলছি এক সাথে। সকলেই বাইরে থেকে একটা ধারণা পোষণ করছেন।দরকারে আপনারা আসুন ড্রেসিংরুমে। আমাদের দলে সিনিয়ররা যেমন সন্মান পায় তেমন জুনিয়ররা ভালোবাসা পায় এখানে কোন সমস্যা নেই আমাদের মধ্যে।

Tags
Show More

Related Articles

Back to top button
Close