Sports Opinion

গর্বিত ভারত : বিশ্ব ব্যাডমিন্টনে বিশ্ব জয়, পিভি সিন্ধু অসাধারণ ‘বর্ণনা আনেক কম !

শেষ পর্যন্ত খেতাব জিতলেন পিভি সিন্ধু ,এই নিয়ে পর পর তিনবার বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠে !

সময়ের গতিতে হারিয়ে গেলেন সিন্ধু ঝরে ওকুহারা। চোকার্স তকমা সরিয়ে এবার চ্যাম্পিয়ন সিন্ধু।পিভি সিন্ধু জাপানের নাজোমি ওকুহারাকে হারিয়ে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন । বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হলেন হায়দরাবাদী শাটলার প্রথম কোনও ভারতীয় হিসেবে।এটাই তাঁর প্রথম খেতাব জয় রিও অলিম্পিকে রুপোজয়ী সিন্ধুর চলতি বছরে।

দুরন্ত জয় ছিনিয়ে নেন সিন্ধু এদিন প্রথম গেমেই ।এদিন ফাইনালে যেন সেখান থেকেই শুরু করেন পিভি সেমি ফাইনালে ঠিক যেখানে শেষ করেছিলেন । মাত্র ১৬ মিনিটে ২১-৭ ফলে প্রথম গেম জিতে নেন হায়দরাবাদী শাটলার।গোপীচন্দের ছাত্রী যাঁকে আজ হেলায় হারিয়ে ইতিহাস গড়লেন , জাপানের সেই ওকুহারা। প্রথম ভারতীয় হিসেবে ব্যাডমিন্টনের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন হলেন পি ভি সিন্ধু। ফাইনালের ফল ২১-৭, ২১-৭ , দ্বিতীয় গেমেও ম্যাচের ওপর নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নেন সিন্ধু।

কোনও ভাবেই প্রাক্তন বিশ্ব চ্যাম্পিয়নকে ম্যাচে ফেরার সুযোগ দেননি ভারতীয় শাটলার। দ্বিতীয় গেমও ২১-৭ ব্যবধানে জিতে নেন সিন্ধু। মাত্র ৩৮ মিনিটে সোনা জিতে নিলেন সিন্ধু।

এই নিয়ে পর পর তিনবার বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠে শেষ পর্যন্ত খেতাব জিতলেন পিভি সিন্ধু। ২০১৭ এবং ২০১৮ সালে পর পর দুবার রুপো জিতেই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছিল ভারতীয় শাটলারকে। ২০১৭ সালে এই ওকুহারার কাছে আর ২০১৮ সালে ক্যারোলিনা মারিনের কাছে হারতে হয় সিন্ধুকে। মুখোমুখি লড়াইয়েও ৮-৭ ব্যবধানে ওকুহারার থেকে এগিয়ে ছিলেন সিন্ধু। এবার সোনা জিতলেন সিন্ধু। ফাইনালে ২১-৭, ২১-৭ ফলে দুই গেমেই বাজিমাত্ করেন ভারতীয় শাটলার। প্রথমবার বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হলেন সিন্ধু।

ইতিহাস! ব্যাডমিন্টনে দেশের প্রথম বিশ্বচ্যাম্পিয়ন, সিন্ধুঝরে হারিয়ে গেলেন।১০১৯-এও কি হেরে গিয়ে ‘চোকার্স’ হবেন সিন্ধু, ফাইনালে ওঠার পরও অনেকেই এই উদ্বেগে ছিলেন।এর নেপথ্যে যাঁর নামটা না করলেই নয়, তিনি পুল্লেলা গোপীচন্দ।ভারতীয় ব্যাডমিন্টনের এই দ্রোণাচার্যের হাত ধরেই ভারত পেয়েছে সাইনা নেহওয়াল আর পি ভি সিন্ধুর মতো সফলদের।

এক কথায় রূপকথা, না দেখলে বিশ্বাস হবে না বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে এমন একতরফা ফাইনাল। বিধ্বংসী মেজাজে, যেন নিজেকেও ছাপিয়ে গিয়ে আজ বিডব্লিউএফ বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপে এর আগে চারটে পদক জিতেছিলেন সিন্ধু।দেশের ইতিহাসেও অলিম্পিকের রুপোজয়ী এ দিন নতুন করে নজির গড়লেন শুধু ব্যাক্তিগত কেরিয়ারেই নয়।

ওকুহারার ফাইনালে প্রথম সার্ভ ছিল, কিছু সময়ের জন্য পয়েন্ট পেয়ে এগিয়েও যান। এর পরই সার্ভিস ব্রেক করে সমতা ফেরান সিন্ধু। ব্যস্! তার পর যা হল, । হারিয়ে গেলেন ওকুহারা। ভেসে ছিটকে গেলেন সিন্ধুঝরে ।সিন্ধুর প্রতিপক্ষকে খড়কুটো আঁকড়ে ধরার মতো অসহায় লাগছিল ।

Tags
Show More

Related Articles

Back to top button
Close